ইংল্যান্ড-ইতালি ফাইনাল

43

ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপের দুই ফাইনালিস্ট ঠিক হয়ে গেল অবশেষে। ইতালি আগেই পা রেখে দিয়েছিল ১২ জুলাইয়ের শিরোপা লড়াইয়ে। তাদের সঙ্গে যোগ দিল ইংল্যান্ড।

বুধবার রাতে ১২০ মিনিটের শ্বাসরুদ্ধকর এক লড়াইয়ের পর ডেনমার্ককে ২-১ গোলে হারিয়ে প্রথমবারের মতো ইউরোর ফাইনালে উঠেছে ইংল্যান্ড। ৫৫ বছর পর তারা নাম লিখিয়েছে মেজর কোনো টুর্নামেন্টের ফাইনালে।

সর্বশেষ ১৯৬৬ বিশ্বকাপে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল ইংল্যান্ড। এরপর চারবার সেমিফাইনালে (১৯৯০ আর ২০১৮ বিশ্বকাপ, ১৯৬৮ আর ১৯৯৬ ইউরো) উঠলেও সেরা দুইয়ে আসতে পারেনি। অবশেষে ঘুচল দীর্ঘদিনের আক্ষেপ।

গ্রুপপর্বে দুই জয় আর এক ড্র নিয়ে এবার ইউরোর নকআউটে নাম লিখিয়েছিল ইংল্যান্ড। শেষ ষোলতে তারা জার্মানিকে হারায় ২-০ গোলে। কোয়ার্টার ফাইনালে ইউক্রেনকে উড়িয়ে দেয় ৪-০তে। এবার ডেনমার্কের বিপক্ষে জয়ে ফাইনালে গ্যারেথ সাউথগেটের দল।

অন্যদিকে গ্রুপপর্বের তিন ম্যাচেই জেতে নকআউটে উঠে ইতালি। শেষ ষোলতে অস্ট্রিয়াকে ২-১ গোলে হারায় আজ্জুরিরা। কোয়ার্টার ফাইনালে বেলজিয়ামকে একই ব্যবধানে হারানোর পর সেমিতে টাইব্রেকারে রবার্তো মানচিনির দল বিদায় করে স্পেনকে।

১২ জুলাই ওয়েম্বলিতে টুর্নামেন্টের ফাইনাল। ইংল্যান্ড নাকি ইতালি-শেষ হাসি তবে কার?