সাংবাদিকদের চোখ ফাঁকি দিয়ে ফিরলেন সাকিব

59
বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) কর্মকর্তাদের নিয়ে সাকিব আল হাসানের বিস্ফোরক মন্তব্যে উত্তাল পুরো ক্রিকেটাঙ্গন। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম থেকে এখন সর্বত্র আলোচনার বিষয় হয়ে ওঠেছেন এই দেশসেরা অলরাউন্ডার।

এমন আলোচনা তরতাজা থাকতেই  হঠাৎ করে খবর এলো, যুক্তরাষ্ট্র থেকে সোমবার (২২ মার্চ) দিবাগত রাতে দেশে ফিরছেন জাতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক এই অধিনায়ক। সেই উপলক্ষে সাকিবের পৌঁছানোর সময়ের (রাত ২টা) আগেই বিমানবন্দরে জড়ো হোন গণমাধ্যমকর্মীরা।

সোমবার (২২ মার্চ) দিবাগত রাত ২টার পর হযরত শাহজালাল বিমানবন্দরে অবতরণ করেন তিনি। তবে অপেক্ষারত গণমাধ্যমকর্মীদের চোখ ফাঁকি দিয়ে ঢাকার নিজ বাসায় চলে যান সাকিব। পরে তথ্যটি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন বিসিবি’র বিমানবন্দর সমন্বয়ক ওয়াসিম খান।

বিমানবন্দরে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা এক কর্মী অপেক্ষারত সাংবাদিকদের জানান, আপনারা যার জন্য (সাকিব) অপেক্ষা করছেন তিনি তো সবার সামনে দিয়েই চলে গেলেন। একটি কালো গাড়িতে চড়ে বাসায় চলে গেছেন তিনি।

জানা গেছে, কাতার এয়ারওয়েজের একটি ফ্লাইটে করে রাত ২টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করার কথা ছিল সাকিবের। কিন্তু ফ্লাইট বিলম্বের কারণে ২টা ৫ মিনিটে দেশের মাটিতে পা রাখেন তিনি।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আসন্ন টেস্ট সিরিজ না খেলে আইপিএলের জন্য বিসিবি থেকে আগেই ছুটি নিয়ে রেখেছেন ৩৩ বছর বয়সী তারকা। কিন্তু এর কারণ হিসেবে বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান আকরাম খান দাবি করেছিলেন, টেস্ট খেলতে চান না সাকিব। তাই তাকে আইপিএল খেলার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। সাকিবের কাছ থেকে এই নিয়ে এতদিন কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

অবশেষে মুখ খুলেছেন তিনি। গত শনিবার (২০ মার্চ) ক্রিকেটবিষয়ক জনপ্রিয় ওয়েবসাইট ক্রিকফ্রেঞ্জিতে এক লাইভ আড্ডায় সাকিব বলেন, ‘ছুটির অনুমতি চেয়ে পাঠানো চিঠিটি বিসিবি ঠিকভাবে পড়েনি। সেই চিঠিতে কোথাও উল্লেখ করা হয়নি যে আমি টেস্ট খেলবো না। এমন কোনো কিছুই সেখানে বলা হয়নি। ’

‘আইপিএল খেলা আমার জন্য ভারতে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া আসন্ন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেরা প্রস্তুতি হবে। তাই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া। ’

মূলত এরপর থেকেই বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। তাছাড়া তিনি এইচপি, ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটিসহ বিসিবির পুরো সিস্টেমকেই দোষারোপ করেছেন।

অনেক কানাঘুষো চলছে, হয়তো বোর্ডের সঙ্গে জরুরি বৈঠকের জন্য দেশে এসেছেন সাকিব। তবে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সাকিবের এবারের দেশে আসার সূচি পূর্বনির্ধারিত। আগে থেকে ঠিক করা কিছু কাজ সম্পন্ন করতেই দেশে ফিরলেন তিনি।